আফগানিস্তানে ফিরছেন তালেবানের নির্বাসিত নেতারা

আফগানিস্তানে ফিরছেন তালেবানের নির্বাসিত নেতারা

আফগানিস্তান দখলের পর সেখানে ফিরতে শুরু করেছেন তালেবানের নির্বাসিত নেতারা। ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসির খবরে বলা হয়েছে, যাঁরা ইতিমধ্যে ফিরেছেন, তাঁদের মধ্যে তালেবানের সহপ্রতিষ্ঠাতা মোল্লা আবদুল গনি বারাদারও রয়েছেন।

নির্বাসনে থাকা তালেবান নেতাদের অনেকেই কাতারের দোহায় অবস্থান করছিলেন। যুক্তরাষ্ট্র ও পশ্চিমা বিশ্বের সামরিক জোট ন্যাটোর সেনাদের আফগানিস্তান থেকে প্রত্যাহারের বিষয়ে বিভিন্ন ধরনের আলোচনা সেখানে হয়েছে। এরপর গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে তালেবানের চুক্তিও হয়েছে। এ সময় তালেবানের নির্বাসিত নেতারা সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

বিবিসির খবরে বলা হয়েছে, নির্বাসন শেষে মোল্লা আবদুল গনি বারাদার যখন কাবুলের বিমানবন্দরে ফেরেন, তখন সেখানে তালেবানের সদস্যরা তাঁর নামে স্লোগান দেন। যুক্তরাষ্ট্রের গণমাধ্যম নিউইয়র্ক পোস্টের খবরে বলা হয়েছে, প্রায় ১০ বছর নির্বাসন শেষে গতকাল মঙ্গলবার দেশে ফিরেছেন বারাদার। গতকাল সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য নিশ্চিত করছেন তালেবানের মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ। তিনি বলেন, বারাদারসহ অন্য নেতারা দেশে ফিরেছেন।

বারাদার তালেবানের সহপ্রতিষ্ঠাতা ছাড়াও সংগঠনটির উপপ্রধান। বিবিসির দেওয়া তথ্য অনুসারে, তালেবানের রাজনৈতিক শাখার প্রধান বারাদার। ওয়াশিংটন পোস্টের খবরে বলা হয়েছে, দেশে ফিরে তিনি কান্দাহারে গেছেন।

তালেবান বিভিন্ন দেশের সঙ্গে যে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনের চেষ্টা করছে, সেই কাজে জড়িত বারাদার। এ জন্য গত মাসে তিনি চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ইর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছিলেন।

Source: